Friday, December 31, 2010

Happy New Year 2011



Good Bye 2010 ..............
Happy Starting 2011 ........

সকলকে ২০১১ এর শুভেচ্ছা।

Sunday, December 26, 2010

CSS Site -00

অনেক দিন আগের কথা যখন ভাবতাম কি ভাবে ওয়েব পেজ ডিজাইন করা হয়। কিছু দূর চেষ্টাও করলাম একা একা শিখার জন্য তেমন কিছু হলোনা। সবকিছুর পর গত নভেম্বর১০, ৫ম ব্যচে ভর্তি হলাম IAC (Bangladesh-Korea Information Access Center) -এ।

আমার প্রথম CSS দিয়ে করা একটা সাইট এখানে দিলাম।


যেকেও ডাউনলোড করে ইডিট করেও ব্যবহার করতে পারবেন।

Web Development





আসছে ................................














* Web Development

Monday, November 15, 2010

সফল হতে চান?

জীবনে সবাই সফল হতে চায়। সফল হবার জন্য নাই কোন সহজ পথ। সাফল্য একটি আপেক্ষিক বিষয়। এক এক জনের কাছে সাফল্য এক এক রকম। এই বিষয়ে রয়েছে নানা মত, নানান বই ইত্যাদি। সবকিছুর একটাই মূল কথা; কাজ করে যাও সাফল্য আসবেই। আমি বলবো মানুষ কখোনই পরি পূর্ন সফল হতে পারে না। কেহ সংসার জীবনে, কেহ কর্ম জীবনে, কেহ সামাজিক ভাবে সফল। কিন্তু সবদিক দিয়ে সফল মানুষ হাতে গোনা কয়েকজন।

"শ্রীশ্রীঠাকুর অনুকূল চন্দ্র" সত্যানুসরণে ১২টি বিষয়ের (দ্বাদশ সঙ্কেত) কথা বলেছেন। যারা সঠিক ভাবে পালন করতে পারবে আমার বিশ্বাস তারা জীবনে সব দিক দিয়ে সফল হবেই।

"সাফল্যের দ্বাদশ সঙ্কেত"

১। জীবনকে যেভাবে বলি দেবে, নিশ্চয় তেমনতর জীবন লাভ করবে। একটা চাইতে গিয়ে দশটা চেয়ে ব'সো না। একেরই যাতে চরম হয় তাই কর। সবগুলিই রক্ষা পাবে।

২। উদ্দেশ্যে অনুপ্রাণিত হও আর প্রশান্তচিত্তে সমস্ত সহ্য কর-তবেই তোমার উদ্দেশ্যে সফল হবে।

৩। হৃদয় দাও, কখনও হ'টে যেতে হবে না।

৪। নির্ভর কর, কখনো ভয় পাবে না।

৫। বিশ্বাস কর, অন্তরের অধিকারী হবে।

৬। সাহস দাও, কিন্তু শঙ্কা জাগিয়ে না-দিতে চেষ্টা কর।

৭। ধৈর্য্য ধর, বিপদ কেটে যাবে।

৮। কেহ তোমাকে দোষী করবার পূর্বেই কাতরভাবে নিজদোষ স্বীকার কর – মুক্তকলঙ্ক হবে , জগতের স্নেহের
পাত্র হবে।

৯। সংযত হও, কিন্তু নির্ভীক হও।

১০। সরল হও, কিন্তু বেকুব হ'য়ো না।

১১। বিনীত হও, তাই বলে দুর্বলহৃদয় হ'য়ো না।

১২। সাধু সেজো না, সাধু হতে চেষ্টা কর।

Sunday, November 7, 2010

তুলা রাশির বৈশিষ্ট্য




১২ ই আশ্বিন (৩০ শে সেপ্টেম্বর) জন্মগ্রহণ করায় জন্মগত কারনে আমি তুলা রাশির জাতক। তাই আমার বেশির ভাগ মানবিক ও শারীরিক বৈশিষ্ট্য জন্মগত বাকিটা আমার প্রকৃতি থেকে নেয়া বা শিখা। তেমন কিছু বৈশিষ্ট্য আমি আজ উল্লেখ করছি। আপনি ও যদি তুলা রাশির জাতক হয়ে থাকেন তাহলে দেখুন কোন বৈশিষ্ট্য গুলো আপনার সাথে মিলে।

ভালোবাসা এবং তুলা শব্দদুটো প্রায়োগিক অর্থে প্রায় সমার্থক। তুলাই ভালোবাসাকে জন্ম দিয়েছে এবং এটাকে এতোটাই পরিশুদ্ধ করেছে যে সেটা শৈল্পিক পর্যায়ে চলে গিয়েছে। প্রেমের দেবতা মদন (কিউপিড) -এর রুচিশীল কৌশলগুলো তুলাদের মধ্যে জন্মগতভাবেই বিদ্যমান। তারা খাপছাড়া ভাবে যেকোন কৌশলই এতো সহজে প্রয়োগ করবে যে মেয়েগুলো সে ফাঁদে পা দেবেই। অবশ্য একবার মেয়েটিকে অর্জনের পর সে বুঝতে পারে না মেয়েটিকে নিয়ে এখন কী করবে। নিজের যাদু দিয়ে মেয়েটিকে সম্পূর্ণভাবে স্বেচ্ছায় আত্মসমর্পণ করাবার পর সে দ্বিধাগ্রস্ত হয়ে ওঠে।

তুলা অন্যের মনে কষ্ট দিতে ঘৃণা করে। কিন্তু বিতর্কের সময় নিজের অজ্ঞাতেই রূঢ় মন্তব্য করে অন্যকে কষ্ট দিয়ে বসে। সে ‘না’ বলতেও ঘৃণাবোধ করে। একবার যদি তুলাটির মনে হয় যে সে আপনার সাথে কিংবা আপনার অতীত প্রণয়ের জের বহন করছে এমন কারো সাথে সে অবিচার করছে কিংবা তার সততা পুরোপুরো খাঁটি নয়, তাহলে সে অন্তহীনভাবে তার সিদ্ধান্তহীনতার মনোকষ্টে ভুগবে। কোন ব্যাপারে অসৎ হওয়া তার কাছে মোটামুটি খুনের অপরাধ করার সমান।

এই পুরুষটির কাছ থেকে আপনি প্রচুর সংখ্যক বিনামূল্য উপদেশ পাবেন। তার কাছে আপনার যেকোন সমস্যার উপযুক্ত সমাধান রয়েছে এবং আপনার যেকোন প্রশ্নের উত্তরও তার জানা আছে। কিছু কিছু স্বপ্নকে সে বদলে দেবে, আর বাদবাকীগুলো নিয়ে আপনার সাথে তর্ক জুড়ে দেবে।

কিন্তু তারপরও সতর্ক করেই বলছি একবার তুলা জাতকের যাদুর স্পর্শ আপনার হৃদয়ে পৌঁছে গেলে তাকে ছেড়ে ফিরে আসা আপনার জন্যে খুব কঠিন হয়ে পড়বে। তুলা জাতকের কাছ থেকে নিজেকে ছুটিয়ে নিয়ে আসার চেয়ে ভালুকের ফাঁদ থেকে পালিয়ে আসা অনেক সহজ ব্যাপার। তার স্বপ্নগুলোই আপনার স্বপ্ন হয়ে উঠবে, আর তাকে সুখী করার চেয়ে আপনার আর কোনকিছুই এতো গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে হবে না। একজন তৃষ্ণার্ত পথিক যেমন পানি খুঁজে ফেরে, তেমনি আপনিও তার হাসিটি খুঁজে ফিরবেন। তুলা পুরুষের হাসি উপেক্ষা করতে হলে আপনাকে একজন হৃদয়হীন শুষ্ক মানুষ হতে হবে। আর তার হাসির বিশুদ্ধতার যাদু এড়িয়ে যেতে হলে আপনার সমস্ত ইচ্ছাশক্তি জড়ো করতে হবে।

অন্যদিকে তার যেটা সমস্যা সেটা হলো, তুলার পাল্লাটা এদিক ওদিক উঁচু-নিচু হলেই তার মধ্যে উদ্ভট অসঙ্গতি দেখা দেয়। তার মনোযোগ আকর্ষণ করতে আপনাকে চিৎকার করতে হবে, বা তাকে ধাক্কা দিয়ে লেকে ফেলে দিতে হবে, কিংবা নিজের মাথায় ভর দিয়ে পা উপরে তুলে দিয়ে তাকে কোন কিছু করতে বাধ্য করতে হবে। যদিও সে স্বয়ং শুক্র দ্বারা শাসিত কিন্তু তাই বলে ততটুকু সরল মনে প্রত্যাশা করবেন যে আপনাদের ভালোবাসা চিরসুন্দর, চিরশান্তিময় হয়ে উঠবে - সেটা ভুলই হবে।

অবশ্য তার জন্মকুষ্ঠিতে জল রাশির যোগ, বা জলে চন্দ্রের যোগ থাকলে অন্য কথা; ভালোবাসার ব্যাপারে সুচারু বলেই যে আপনার বিভিন্ন অনুভব-অনুভূতির ব্যাপারেও সে সমব্যথী হয়ে উঠবে এমন কোন কথা নেই। নিজের অনুভূতির সাথে খাপ খাইয়ে থাকাতেই সে হিমশিম খাচ্ছে। কোনকিছুই তাকে হয়তো ততটুকু বিরক্ত করবে না যতটুকু করবে কারো কাছ থেকে কষ্ট পেয়ে এসে তার কাছে সেটার বিবরণ দিতে গেলে।

জন্মকুষ্ঠিতে মিতব্যয়িতার প্রভাব না থাকলে, তুলা পুরুষরা সাধারণত খরচের ব্যাপারে তেমন শক্ত হয় না। বরং টাকা থাকলে তাদের হাত চুলকোতে শুরু করে। যেসব বস্তু বা জিনিসপত্র জীবনে সৌন্দর্য এবং সুখ বয়ে আনতে সক্ষম সেগুলোর পেছনে টাকা খরচ করাই তার মতাদর্শ। পরের গোপন ব্যাপারগুলোকে সমূলে উৎপাটন করার ব্যাপারে তার তেমন আগ্রহ নেই। হয়তো তাকে এক নজর দেখে মনে হতে পারে যে সে আগ্রহী, কিন্তু আরেকবার ঠিকমতো দেখুন। তার নাকের দুই ইঞ্চি নিচে কী ঘটছে সেটাও সে প্রায়ই ধরতে ব্যর্থ হয়। সাধারণত তুলা জাতক বা জাতিকার মানসিকতা হলো প্রথমে জীবন সঙ্গী এবং পরে সন্তান।

একজন তুলা জাতকের জন্যে নিজের মনকে স্থির করা, একটা বন্য মহিষকে বশ মানাবার থেকে কম কষ্টের কাজ নয়। আর মনস্থির করার পর তার যদি মনে হয় যে ভুল করা হয়েছে তাহলে কোন সতর্কতা দেয়া ব্যতিরেকেই সে তার সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে ফেলতে পারে। তুলা পুরুষটি মহিলাটিকে অফিস যাবার পথে নামিয়ে দিয়ে গেলে মহিলাটি দুঃশ্চিন্তা করতে শুরু করে। তার দেয়া কথাগুলো এতই মধুর ছিলো যে সেগুলো সত্য বলে মেনে নিতে পারছিলো না বেচারি। তাই তাকে সে ফোন করে, এইটুকু প্রমাণ করতে যে সে স্বপ্ন দেখছিলো না। পুরষটি তখনও উত্তেজনায় আপ্লুত হয়ে আছে, তাই সে তার সবগুলো কথাই আবার বলে এবং তাকে নিশ্চিন্ত করে। এবং পরবর্তী সপ্তাহে আবার একসাথে বসবার একটি দিন নির্দিষ্ট করে।

তুলা পুরুষরা সন্দিগ্ধতাকে ঘৃণা করে, এবং নিজেকে স্থিরচিত্ত রাখার জন্যে তার জন্যে অপরিহার্য সামঞ্জস্য। তার বাড়িটা হওয়া চাই বাইরের কোলাহলময় বিশ্ব থেকে ভিন্ন একটা শান্ত সুন্দর আবাসস্থল। অন্যথায় তার পাল্লাটা চিরতরে নিজের সাম্য হারাবে। যেহেতু সে নিজে তেমন একটা উদ্দেশ্য নিয়ে ঘাটাঘাটি করে না, তাই কেন সে বাসায় ফেরে না, কিংবা যখন ফেরে তখন শুধুই ঘুমিয়ে কাটায় সেটা বুঝতে আপনাকে স্মার্ট হতে হবে। মনে রাখবেন, নিজের অনুভূতি বর্ণনার ক্ষেত্রে সে দুর্বল তাই আপনাকে অবশ্যই একজন বিশ্লেষণকারীতে পরিণত হতে হবে।


সুত্রঃ http://www.rashi12.com/

Monday, October 11, 2010

ইন্টারনেটে আয় কত সহজ ?

অনেক আগের থেকেই নিজে কিছু করার চিন্তা ভাবনা চলছে। বন্ধু মহলে আমার একটা কথা প্রচলিত আছে আমি চাকরি করা অবস্থায় বিবাহ করবো না :-)। আমি নিজে কিছু করবো এবং আমার মত সুযোগ বঞ্চিত যারা তাদের সাহায্য করা। সব কাজ নিজে নিজে করতে ভালবাসি। তারই ধারাবাহিকতায় একসময় কম্পিউটার শিক্ষা তারপর ........................

প্রায় ১ বছর আগে লিখেছিলাম। ইন্টারনেটে আয় নিয়ে নানান কর্মশালা হয় বর্তমানে। তেমনই এক কর্মশালায় শিখে আসলাম নানান ভাবে আয় করার পথ ও তার সুবিধা-অসুবিধা। পথ জানলাম কিন্তু কাজ তো পারি না তেমন যে ইন্টারনেটে আয় করবো। তাই তখন আর বেশী দূর আগানো হলোনা।

কিছুদিন আগে লক্ষীবাজারে ঘুরতে ঘুরতে দেখলাম ইন্টারনেটে আয়ের উপর একটি কোর্স করানো হয়। আবার যেন মনটা নারা চারা দিয়ে উঠলো। ইন্টারনেটে আয়ের উপর কোর্স!!! কি করাবে? দেখা যাক একদিন কথা বলে। তেমনি এক দিন আমরা তিন বন্ধু গেলাম সেই ঠিকানা অনুসারে কথা বলতে, কি শিখাবেন? কিভাবে শিখাবেন? কথা বলে ভালো লাগলো। তার কিছুদিন পর তিনজনই একসাথে ভর্তি হলাম টাকা কামানোর জন্য :-)

প্রথম ক্লাসেই কয়েকটি ওয়েবসাইটের নাম জানিয়ে দিলো কোন কোন সাইটে কাজ কার যায়। MicroWorkes, Odesk, FreeLancer, Vworker, MoneyBookers ইত্যাদি। এর মধ্যে MicroWorkes খুব কম বাজেটে কাজ দেয়। লগইন করে কাজ সুরু করলাম। ২ টি ক্ষুদ্র কাজ ও করলাম। ভালো লাগলো যখন দেখলাম কাজ জমা দেয়ার একদিন পর ০.২০ ডলার আমার একাউন্ডে জমা হয়ে গেল। তার মানে কাজ করা যাবে।

এই কোর্সে আমাদের লগো ডিজাইন করা শিক্ষাবে এবং তা দিয়ে কিভাবে টাকা কামানো যায়। এখন মাত্র ২ টি ক্লাস শেষ করেছি আরো ১০ -১২ টি ক্লাস আছে। তার পর ওয়েব ডিজাইনিং শিখবো আশাকরি। এখন বড় পরিসরে কাজ করার আশায় মাঠে নেমেছি। কাজ পাওয়ার জন্য বিট করা শুরু করলাম। দেখা যাক .....................

Friday, October 1, 2010

কেন অঙ্কুরে চাকরি করতে আসলাম?

অনেক দিন আগে লিখেছিলাম “মনের কিছু কথা .........”। এই লেখাটিতে টাইগার আটি-র চাকরি ছেড়ে কেনো অঙ্কুরে চাকরি করতে আসলাম তার কয়েকটি কারন লিখেছিলাম। এখানে প্রথম ৩টি কারন লেখা হয় নাই। আজ লিখছি.................

আমি বিশ্বাস করি আমার কম্পিউটার বিষয় অভিঙ্গতা কম। আমার প্রথম কম্পিউটার শিক্ষক বা কম্পিউটার হাতে খড়ি আমার ছোট কাকার বন্ধু “সফিক কাকা” -র কাছে। পরবর্তীতে ইনফোবেজ লিঃ-এ CHP (Certified Hardware Professional) করি। তখন আমাদের শিক্ষক ছিলেন জনাব মাহে আলম খান (MAK vai)।

এখন আসি মূল কথায়। কেন অঙ্কুরে চাকরি করতে আসলাম?

১। আমার কম্পিউটার বিষয়ে এত নাম-ধাম তার ৬০% জনাব মাহে আলম খান ভাই এর কারনে বাকিটা আমার পরিশ্রম, মেধা ইত্যাদি। জামিল ভাই ও ম্যাক ভাই একদিন বলেছিলো আমি যদি অঙ্কুরে যোগ দেই তাহলে তাদের জন্য ভালো হয়। নিজের লোক থাকা দরকার।

২। তারা আমাকে নানা ভাবে উপকার করেছে (ভালো বেতনের চাকরি) তাই তাদের কাছে আমি ঋনি। অঙ্কুরে চাকরি করে তাদের প্রতি কিছুটা কৃতজ্ঞতা দেখানো।

৩। নিজে একটা প্রতিষ্ঠা দেবার ইচ্ছা অনেক দিনের। তাই শেষ চাকরিটা অঙ্কুরের সাথে কাটালাম কিছু দিন। আরো কিছু শিখা দরকার।

Monday, August 30, 2010

Install joomla on your computer (Part-3)

{Part-2} এর পর থেকে। পার্ট-২ আমরা জুমলা সেটআপ শেষ করেছিলাম। এখন আমরা WAMPServer চালু করবো। এখন আমরা PhpMyadmin চালু করলে দেখবো একটা ইরোর বার্তা আসে। এখন এটা কিভাবে সমাধান করা যায় তা দেখবো।


WAMPServer চালু করার পর তা Put Online- ক্লিক করবো। যদি Put Online হয়ে থাকে তাহলো কিছু করার নাই। তারপর PhpMyadmin চালু করবো। ব্রাউজার এ যে ইরোর বার্তা আসে তা মুলত আসে আমার PhpMyadmin -এ পাসওয়ার্ড এর জন্য।

সমাধান:


১। আমরা প্রথমে WAMPServer যে খানে ইনিস্টল করেছি সেখানে config.inc.php নামক ফাইলটি নোটপ্যাট দ্বারা ওপেন করে ইডিট করবো। এই কনফিগার ফাইল টি C:\wamp\apps\phpmyadminx.x.x.x লোকেশনে গেলে পাওয়া যাবে। এখানে x.x.x.x দ্বারা phpmyadmin এর ভারশন বুঝানো হয়েছে।



২। এখন {$cfg['Servers'][$i]['password'] = '';} এর পরিবর্তে {$cfg['Servers'][$i]['password'] = '123456';}
তার মানে আমরা যে পাসওয়ার্ড দিয়েছিলাম তা দিতে হবে।
৩। আবার {$cfg['Servers'][$i]['auth_type'] = 'config';}এর পরিবর্তে {$cfg['Servers'][$i]['auth_type'] = 'cookie';} লিখনো।



৪। এখন config.inc.php ফাইলটি সেইভ করে বের হবো। এবং http://localhost/ রিফ্রেশ করবো ওথবা পুনরায় চালু করবো। তখন দেখা যাবে Login করার জন্য Username ওPassword চাচ্ছে। Username ওpassword সঠিক ভাবে দিয়ে Login করবো।



এখন আরকোন সমস্যা থাকলো না phpmyadmin ব্যবহার করার জন্য। আশাকরি বাকি কাজ গুলো আমরা নিজেরাই করতে পারবো। আরো কিছু লেখা দেবার আশা রাখি।

~~~~~~~~~~~~~~~~~~

বিঃ দ্রঃ ~ যাদের লেখা ও সহযোগিতায় লেখা তাদের সকলকে ধন্যবাদ।

Saturday, August 28, 2010

Install joomla on your computer (Part-2)


{Part-1} এর পর। যারা পার্ট -১ শেষ করেছেন তাদের জন্য পার্ট-২ শুরু করলাম। অথবা পার্ট-১ দেখে আসতে হবে।
জুমলার ফাইলগুলো মূলত zip বা rar ফরম্যাটে থাকে। প্রথম কাজ হবে ফাইলটিকে আনজিপ করা।
. আমরা যেহেতু localhost বা নিজস্ব Computer-কে সার্ভার হিসেবে ব্যবহার করছি, তাই www ফোল্ডারে ফাইলটি আনজিপ বা এক্সট্রাক্ট করতে হবে। ধরে নিলাম, আমরা sharkarhouse নামে একটি ওয়েব সাইট করবো। তাই C:\wamp\www-এর ভেতরে sharkarhouse নামে ফোল্ডার বানিয়েছি।

২। এইবার Browser (FireFox) ওপেন করে http://localhost/ লিখে এন্টার দিলে sharkarhouse নামে একটি অপশন আসবে। ক্লিক করলে জুমলা সেটআপ শুরু হবে।

৩। আমরা এখন ভাষা নির্বাচন করবো। আমরা ভাষা হিসাবে ইংরেজিকে নির্বাচন করবো। তারপর Next। তখন Pre-installation Check নামে একটি অপশন আসবে।

. এখন আমরা দেখতে পাবো অনেকগুলো Yes বা No অপশন। সব কনফিগার ঠিকঠাকমতো করা থাকলে কোথাও No দেখার কথা না তারপর ও দেখা গেলে ঘাবরানোর কিছু নেই। আমরা Next বাটন চাপ দিয়ে পরবর্তি পেইজে যাবো।
. এখন লাইসেন্স অ্যাগ্রিমেন্টটি পড়ে দেখতে পারেন একবার, একমত হলে আবার Next

. এখন ডাটাবেজ কনফিগারেশন অপশন। Database Type হবে mysqlHostName-এর জায়গায় localhost লিখতে হবে। User Name-এর জায়গায় root লিখবো। mysql কনফিগার করার সময় যে পাসওয়ার্ডটি দিয়েছিলাম তা এখানেও দিতে হবে। Database Name হবে sharkarhouseতারপর Next
৭। যদি ডাটাবেজ এর পাসওয়ার্ড না দিয়ে থাকি তাহলে PhpMyadmin ওপেন করে পাসওয়ার্ড দিতে হবে।

ছবির মত করে।
৮। এখন sharkarhouse নামে একটি ডাটাবেজ তৈরি হয়ে গেলো।
৯। FTP কনফিগারেশন আসবে। আমরা এখানে কিছু করবো না। তারপর Next বাটন চাপ দিবো।

১০। Main Configuration আসবে। Site Name দিতে হবে। তারপর Email Password দিবো। প্রথমবারের মতো যেহেতু জুমলা ব্যবহার করছি, তাই Sample Data install করবো। তাহলে জুমলা সম্পর্কে একটা প্রাথমিক ধারণা পাওয়া যাবে। তারপর Next

১১। মোটামুটি এখানেই শেষ। যেখানে জুমলার Installation ফোল্ডারটি মোছার একটি বার্তা আসবে। যেখানে জুমলার ফাইল আনজিপ বা এক্সট্রাক্ট করেছিলাম, সেখানে গিয়ে Installation ফোল্ডারটি মুছে দিতে হবে।
১২। এইবার Browser (FireFox) ওপেন করে http://localhost/sharkarhouse লিখে এন্টার দিলে দেখেন কি দেখা যায়।

১৩। http://localhost/sharkarhouse/administrator/ লিখে আমরা user name: admin password:*** login করবো এবং জুমলা নিজের মত করে সাজাবো।
শেষ হলো জুমলা সেটআপ। 

Friday, August 27, 2010

Install joomla on your copmuter (Part-1)

জুমলা কি? খায় না মাথায় দেয় তা আমার আলোচনার বিষয় না। যারা জানতে চান তাদের জন্য উইকি আছে। জুমলা নিয়ে অনেকদিন ঘাটাঘটি করে নিজের মত করে সেটআপ করলাম জুমলা (Joomla)

প্রথমে আমরা Windows xp-তে কিভাবে জুমলা সেটআপ করতে হয় তা শিখবো। পরবর্তিতে Linux এ জুমলা সেটআপ কার শিখবো। ধারবাহিক ভাবে কয়েকটা পার্ট বা অংশে আমরা আলোচনা করবো। জুমলা দিয়ে ওয়েব সাইট বানাতে হলো আমাদের মূলত দুটো সফটওয়্যার ডাউনলোড করতে হবে। একটি হলো Joomla এবং আরেকটি WAMP সার্ভার।

আমি ব্যক্তিগতভাবে WAMP সার্ভার ব্যবহার করে খুশি। এধরনের আরো অনেক সার্ভার ফ্রি নেট থেকে নামানো যায়। মূলত জুমলা দিয়ে ওয়েব সাইট বানানোর জন্য আমাদের পিএইচপি (PHP), মাইএসকিউএল (MySql) এবং অ্যাপাচি (Apache) ব্যবহার করতে হয়। এগুলোর বিভিন্ন ভার্সন বা সংস্করণ থাকলেও আমরা সেদিকে যাবো না। কারণ WAMP ইনস্টল করলে এগুলো সব একসাথে সেটআপ হয়ে যায়।

এখন দেখি কীভাবে WAMP সার্ভার ইনস্টল করতে হয়। সাধারনত নিয়মের মতই সেটআপ পদ্ধতি ধারাবাহিক ভাবে দেয়া হলো।

১। এবার ডাউনলোডকৃত wampserver 2-এর .exe ফাইলটিতে ডাবলক্লিক করতে হবে।Next বাটন চাপতে হবে।

২। লাইসেন্স অ্যাগ্রিমেন্টটি পড়ে I accept the agreement-এ ক্লিক করে। Next বাটন চাপতে হবে।

৩। এবার সার্ভারটি কোথায় ইনস্টল হবে তা জানতে চাইবে। সেখানে ডিফল্ট হিসেবে C:\wamp\ থাকে। Next বাটন চাপতে হবে।

৪। এবারে দুটো অপশন আসবে। আমরা যদি Quick Launch এবং Desktop-wampserver- এর আইকন চাই, তাহলে দুটোতেই টিক চিহ্ন দিতে হবে। না হলে যেটি দরকার শুধু সেটিতে ক্লিক করলেই হবে।

৫। এখন Install বাটনে ক্লিক করতে হবে এবং ধৈর্য্য ধরে কিছুক্ষন অপেক্ষা করতে হবে।

৬। এক পর্যায়ে ডিফল্ট ব্রাউজার কোনটি হবে তা জানতে চাইবে ফায়ারফক্স ব্যবহার করার কারনে আমি এটাকেই ডিফল্ট ব্রাউজার হিসাবে দেখিয়ে দিলাম।

৭। SMTP-এর এখানে localhost এবং Email-এর এখানে যেকোন একটি ইমেইল আডি দিতে হবে।

৮। Launch WampServer 2 now বাটনে ক্লিক চিহ্ন দিয়ে Finish

৯। wampserver 2 ইনস্টল করা হয়ে গেলো।
১০। WampServer আইকনে ক্লিক করে Localhost লেখায় ক্লিক করতে হবে।

১১। Tools-এর এখানে phpMyAdminলেখাটিতে ক্লিক করতে হবে। নতুন একটি পেজ আসবে।

১২। আমাদের Database তৈরি করতে হবে। যেনামে আমরা ওয়েব সাইট করবো সেই নাম দিবো। যেমন: sharkarhouse

আজকে এই পর্যন্তই ..........................

(Part-2)



Monday, August 23, 2010

Freelancer / Outsourcing and Me

যতটুকু মনেপড়ে ২০০৬ সালের দিকে “দৈনিক প্রথম-আলো” -তে একটা লেখা পড়েছিলাম আউটর্সোসিং (Outsourcing) সম্পর্কে। বাংলাদেশে এর সম্ভাবনা নিয়ে অনেক আলোচনা। তখন থেকে মাথার মধ্যে ঠুকে গেলো কি করে এই কাজ করা যায়। তখন ম্যাক ভাইয়ের সাথে আলোচনা করে বিষয় টা আরো পরিষ্কার হলো।

বর্তমান আমাদের দেশে অনেক বড় বড় প্রতিষ্ঠান আউটর্সোসিং এর কাজ করে খাকে। আউটর্সোসিং কি? আমি খাটি বাংলা ভাষায় যা বুঝি তা হলো: কামলা খাটা। মানে আমি একা বা গ্রুপ নিয়ে ক্লায়েন্ট এর চাহিদা অনুসারে তার কাজ করে দেওয়া। কাজ পছন্দ হলো টাকা দিবে।

বর্তমানে আমারা আরেটা শব্দ বেশি শুনছি তা হলো ফ্রীলেনছার (Freelancer)। ফ্রীলেনছার কি? অনেকটা আউটর্সোসিং এর মত। স্যার ওয়ালটার স্কট এর প্রবক্তা। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে কাজ বুঝিয়ে দিতে হয় বাইয়ার (Bayer) কে। পৃথিবীর নানা প্রান্তে বসে লক্ষ লক্ষ লোক স্বাধীন ভাবে ফ্রীলেনছার হিসাবে কাজ করে যাচ্ছে।

আমরা বাঙ্গালী যেখানে ইকটু লাভ দেখি সবাই সেই দিকে ঝাপিয়ে পরি। কিছু দিন যাবত “ঘরে বসে আয় করুন লক্ষ লক্ষ টাকা” এই ধরনের স্লোগান দিয়ে বিভিন্ন কোর্স করিয়ে বেকার ছেলে-মেয়েদের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে অনেকেই। তাদের কাছথেকে আমাদের সাবধান হতে হবে। কিছু ভালো প্রতিষ্ঠান আছে যারা কাজ শিখিয়ে তাদের সাথে কাজ করার জন্য উৎসাহিত করে।

যেহেতু এটা আমার একটা সপ্ন। তাই অনেক দিন ধরে ভাবছি চাকরি ছেড়ে দিয়ে আমরা কয়েক জন বন্ধু মিলে ফ্রীলেনছার হিসেবে নিজেদের প্রতিষ্ঠিত করা। এখন সেই দিকেই আগাচ্ছি.................... । দেখি কবে নাগাদ আমার লক্ষে পৌঁছতে পারি।

যারা এই বিষয়ে অভিজ্ঞ তাদের মতামত আশা করছি।

Sunday, August 22, 2010

আমার বংশ পরিচয়

. ৺উদয় চন্দ্র শীল

. ৺গোবিন্দ চন্দ্র শীল

. ৺ফটিক চন্দ্র শীল

. ৺ সনাতন শীল

=> () ৺ রাজেন্দ্র নাথ শীল

=> () ৺ রাখাল চন্দ্র শীল

=> () ৺ শরৎ চন্দ্র শীল

=> () ৺ অনাথ চন্দ্র শীল (মঙ্গল সাধু)

===================

() ৺ রাজেন্দ্র নাথ শীল

=> () ৺ কালিপদ সরকার

=> () ৺ চারু বালা শীল

() ৺ শরৎ চন্দ্র শীল

=> () ৺ তারা পদ সরকার

=> () ৺ খোকন চন্দ্র সরকার

=> () পীরু বালা শীল

() ৺ রাখাল চন্দ্র শীল

=> () অমর চন্দ্র শীল

() ৺ অনাথ চন্দ্র শীল (মঙ্গল সাধু)

(বিবাহ করেন না)

====================

() ৺ কালিপদ সরকার (আমার ঠাকুর দাদা)

=> .আরতি রানী শীল

==> I) ছিতী রানী শীল

=> . রবীন্দ্র নাথ সরকার

==> I) মাধবী রানী শীল

==> II) রাম কৃষ্ণ সরকার

==> III) শিখা রানী সরকার

=> .বিরেন্দ্র নাথ সরকার

==> I) বিথী রানী রায়

==> II)বলরাম সরকার

==> III)শিশির কুমার সরকার

==> IIII)অসোক কুমার সরকার

=> .সান্তোনা রানী শীল

==> I) সাধন চন্দ্র শীল

==> II)লতা রানী শীল

==> III) গীতা রানী শীল

==> IIII)মিতু রানী শীল

=> .অসীম কুমার সরকার

==> I) মেনোকা রানী সরকার

==> II) সুসমিতা রানী সরকার

=> . কার্তিক চন্দ্র সরকার

==> I)কিশোর কুমার সরকার

==> II)কিশোরী রানী সরকার

=> .চায়না রানী হালদার

==> I) কাজল হালদার

==> II)জয় হালদার

=> .বিজয় কুমার সরকার

====================

** ৺ কালিপদ সরকার (আমার ঠাকুর দাদা)

জম্নঃ ১ লা আশ্বিন ১৩৩৫ বাংলা, ১৭ ই সেপ্টেম্বর ১৯২৮ ইংরেজী, রোজ রবিবার।

বিবাহঃ ১১ ই বৈশাখ ১৩৬৩ বাংলা, ২৭ শে এপ্রিল ১৯৫৬ ইংরেজী, রোজ মঙ্গলবার।

মৃত্যুঃ ৩ রা মাঘ ১৪০৫ বাংলা, ১৭ ই জানুয়ারি ১৯৯৯ ইংরেজী, রোজ বুধবার, সময়-দুপুর ১:৫০ মিনিট।

** রবীন্দ্র নাথ সরকার (বাবা)

জম্নঃ ২ রা কার্তিক ১৩৬৫ বাংলা, ২০ শে অক্টোবর ১৯৫৮ ইংরেজী,রোজ রবিবার।

** রাম কৃষ্ণ সরকার (বাপ্পী)

জম্নঃ ১২ ই আশ্বিন ১৩৮৯ বাংলা, ৩০ শে সেপ্টেম্বর ১৯৮২ ইংরেজী, রোজ বুধবার রাত্র ১২:৩০ মিনিট।